| বাংলার জন্য ক্লিক করুন

|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|

   শেয়ার করুন
Share Button
   রাজনীতি
  সিলেটে মানুষরুপী অমানুষের বর্বরতার শিকার খাদিজা
  9, October, 2016, 2:09:39:PM

মানবাধিকারের উপর চরম আঘাত

সিলেটে মানুষরুপী অমানুষের বর্বরতার শিকার খাদিজা

বিশেষ প্রতিবেদক:

 

‘বদরুল ২০১০ সাল তাকি আমরার বাড়িত লজিং আছিল। মাস্টর মানুষ। তাঁরে বহুত আদর-যতœ করছি। সে জওয়াব দিছে আমার ভাতিঝিরে কুফাইয়া। দুধ-খলা দিয়া আমরা কালা সাপ পুষছি।’ কথাগুলো বলছিলো খাদিজার চাচা আবদুল কাইয়ুম।

গত ৩ অক্টোবর খাদিজার সঙ্গে তাঁর কুশল বিনিময় হয় এবং তিনি প্রেমের সম্পর্কের বিষয়টি খাদিজার কাছে উত্থাপন করেন। তাঁদের দুজনের প্রেম যেন ভেঙে না যায়, তা নিয়ে তিনি অনুনয়-বিনয় করেন। কিন্তু খাদিজা সেটি মেনে না নিয়ে তাঁকে সরাসরি প্রত্যাখ্যান করেন। এরপর খাদিজা পরীক্ষার হলে প্রবেশ করেন।

বদরুল পরীক্ষা শুরু হওয়ার অনেক আগে সকাল ১০টার দিকে তিনি এমসি কলেজে অবস্থান নিয়েছিলেন এবং খাদিজা কলেজের কোন ফটক দিয়ে প্রবেশ করেন, সেদিকে নজর রাখতে শুরু করছিলেন। খাদিজা পরীক্ষার হলে গেলে বদরুল একটি কোমল পানীয় ও পানির বোতল কিনে অফিস পিয়নের মাধ্যমে খাদিজার কাছে পাঠান। কিন্তু খাদিজা সেসবও নিতে অস্বীকৃতি জানান। পরীক্ষা শেষে খাদিজা হল থেকে বেরিয়ে এলে তিনি রাগের মাথায় সম্পূর্ণ নিজের ইচ্ছা ও বুদ্ধিতে চাপাতি দিয়ে খাদিজাকে এলোপাতাড়ি মাথা, হাতসহ শরীরের নানা জায়গায় কোপাতে থাকেন। এরপর দৌড়ে পালানোর চেষ্টা করলে পুলিশ এসে তাঁকে গ্রেপ্তার করে জবানবন্দিতে বলছিলেন বদরুল। গত ৫ অক্টোবর বদরুলের জবানবন্দি ১৬৪ ধারায় নথিভুক্ত করেন মহানগর আদালতের অতিরিক্ত বিচারিক হাকিম উম্মে সরাবন তহুরা। বেলা ২টা ৪০ মিনিট থেকে বিকেল ৪টা পর্যন্ত তাঁর জবানবন্দি লিপিবদ্ধ করা হয়।

জবানবন্দি গ্রহণ শেষে উপস্থিত সাংবাদিকদের মামলার তদন্ত-তদারকের দায়িত্বে থাকা মহানগর পুলিশের অতিরিক্ত উপকমিশনার (দক্ষিণ) জেদান আল মুসা বলেন, ‘বদরুল সবকিছু স্বীকার করে নিয়েছেন। এ জন্য দ্রুত বিচার নিশ্চিত করতে আমরা এ মামলার চার্জশিট আগামী ১৫ দিনের মধ্যে দিতে পারব।’ জবানবন্দি গ্রহণের পর বদরুলকে কারাগারে পাঠিয়ে দেওয়া হয়েছে।

প্রকাশ্যে সবার সামনে কোপানো হয় খাদিজাকে। নৃশংসতার শিকার কলেজছাত্রী খাদিজা বেগম নার্গিসের অবস্থা সংকটাপন্ন। খাদিজা বেগম এখন রাজধানীর স্কয়ার হাসপাতালে চিকিৎসাধীন। তাঁর অবস্থা আশঙ্কাজনক। হাসপাতালের মেডিসিন অ্যান্ড ক্রিটিক্যাল কেয়ার বিভাগের পরামর্শক মির্জা নাজিম উদ্দিন সাংবাদিকদের বলেন, ‘৭২ ঘণ্টা শেষ না হলে কিছুই বলা সম্ভব না। তাঁর অবস্থা সংকটাপন্ন। তবে আমরা এখনো আশাবাদী।’ উন্নত চিকিৎসার জন্য বিদেশে পাঠানোর মতো শারীরিক অবস্থা খাদিজার নেই বলেও তিনি জানান। স্কয়ার হাসপাতাল সূত্র মানবাধিকার খবরকে জানিয়েছে, খাদিজার মাথায় যে অস্ত্রোপচার করা হয়েছে, তাকে ‘ডিকম্প্রেশন ক্রেনিয়েকটমি’ বলা হয়। এই অস্ত্রোপচারের উদ্দেশ্য মস্তিষ্কের ওপর তরলের চাপ কমানো। চাপাতি দিয়ে আঘাত করায় খাদিজার মাথায় প্রচুর রক্ত জমে গিয়েছিল। এই চাপ তাঁর মস্তিষ্ক সহ্য করতে পারেনি। তাই তিনি অচেতন হয়ে পড়েন। গত ৪ অক্টোবর অস্ত্রোপচার করে চিকিৎসকেরা প্রথমে ওই রক্ত অপসারণ করেন। তবে অস্ত্রোপচারের পর খাদিজার অবস্থার কোনো উন্নতি হয়েছে কি না, তা এখনই বোঝার কোনো উপায় নেই। খাদিজা এখনো লাইফ সাপোর্টে আছেন। রোগীর শারীরিক অবস্থার উন্নতি হলে ৭ অক্টোবর লাইফ সাপোর্ট কিছুক্ষণের জন্য প্রত্যাহার করে চিকিৎসকেরা একটি সিটি স্ক্যান করার চেষ্টা করবেন।

বদরুল শাহজালাল বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয়ের অর্থনীতি বিভাগের ছাত্র এবং ওই বিশ্ববিদ্যালয় শাখা ছাত্রলীগের নেতা। হামলার ঘটনায় বদরুল আলমকে সাময়িক বহিষ্কার করেছে শাহজালাল বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয় কর্তৃপক্ষ। এ দিকে বদরুলকে সন্ত্রাসী আখ্যা দিয়ে নিজেদের কেউ নন বলেও দাবি করেছে ছাত্রলীগ। ছাত্রলীগের দফতর সম্পাদক দেলোয়ার হোসেন শাহজাদা স্বাক্ষরিত গণমাধ্যমে পাঠানো এক বিবৃতিতে বলা হয়, ‘বাংলাদেশ ছাত্রলীগ বৃহৎ ছাত্র সংগঠন হওয়ায় অসংখ্য নেতা-কর্মী এ সংগঠনের সঙ্গে জড়িত। কারও ব্যক্তিগত অপকর্মের দায়ভার ছাত্রলীগ কখনো নেবে না।’

সাংগঠনিক নিয়মেই কর্মক্ষেত্রে যোগদানের সঙ্গে সঙ্গে বদরুলের সদস্যপদ বাতিল হয়েছে বলেও জানানো হয় বিবৃতিতে। এতে বলা হয়, ‘যেহেতু তিনি বর্তমানে ছাত্রলীগের সঙ্গে সম্পর্কহীন এবং অন্য একটি পেশায় কর্মরত, তাই গণমাধ্যমের সাংবাদিক বন্ধুদের প্রতি আহ্বান জানাচ্ছি সন্ত্রাসী বদরুল আলমের ব্যক্তিগত অপকর্মের সঙ্গে ঐতিহ্যবাহী ছাত্রসংগঠন ছাত্রলীগকে জড়াবেন না বা নাম ব্যবহার করবেন না।’

কলেজছাত্রী খাদিজাকে কুপিয়ে আহত করা বদরুল আলমের সর্বোচ্চ শাস্তির দাবিতে ৪ আক্টোবর সিলেট সরকারি মহিলা কলেজের শিক্ষার্থী ও শিক্ষকেরা নগরে বিক্ষোভ মিছিল বের করেন। চাপাতি দিয়ে এলোপাতাড়ি কোপানোর এই ভিডিও ফুটেজ মুহূর্তেই ফেসবুকসহ বিভিন্ন মাধ্যমে ছড়িয়ে পড়ে। তোলপাড় শুরু হয় সারা দেশে। এই হামলার দৃশ্য দেখে হতবাক দেশের মানুষ। ভিডিও ফুটেজে দেখা যায়, বদরুল একটি চাপাতি দিয়ে মাটিতে ফেলে নার্গিসকে এলোপাতাড়ি কেপাচ্ছেন। দূর থেকে এই কোপের শব্দ পর্যন্ত শোনা যাচ্ছিল। এর পরই সারা দেশে প্রতিবাদের ঝড় ওঠে। বদরুলের বিচার দাবিতে শিক্ষার্থীরা রাস্তায় নামেন। উত্তাল হয় সিলেটসহ সারা দেশ।

মানবাধিকার কমিশনের চেয়ারম্যান কাজী রিয়াজুল হক স্কয়ার হাসপাতালে খাদিজাকে দেখতে গিয়ে গত ৫ অক্টোবর সাংবাদিকদের বলেন, ১৫ দিনের মধ্যে পুলিশকে তদন্ত প্রতিবেদন দিয়ে ২ মাসের মধ্যে বিচারকার্য সম্পন্ন করতে পরামর্শ।

সমাজে মানুষের সংখ্যা বাড়লেও বাড়েনি মানুষের মনুষত্য, মানবিকতা, বিবেক। যার দরুন আজ মানবাধিকার নামে ছোট শব্দটির ব্যপ্তি অনেক হলেও বিলুপ্ত প্রায়। একের পর এক মানবাধিকার লঙ্ঘন জনিত অসংখ্য ঘটনা সঠিক বিচার না হওয়ায় দেশকে কঠিন সংকটে ফেলেছে যার করুন বর্বরতার শিকার সিলেটের কলেজছাত্রী খাদিজা। বিলুপ্ত মানবাধিকার পুনরুদ্ধারই এই সংকট থেকে উত্তরোনের একমাত্র উপায়।

দেশে নারীরা বিভিন্নভাবে নির্যাতনের শিকার হচ্ছে। যেগুলো দৃশ্যমান হয় শুধু সেগুলোই আমরা দেখতে পাই কিন্তু অধিকাংশ নারীরাই কাউকে কোনো অভিযোগ করেন না। এ ধরনের সহিংস ঘটনা সমাজের আানচে কানাচে প্রতিনিয়ত ঘটে চলছে। খাদিজার সাথে যে পৈশাচিক ঘটনা ঘটে গেল তা  সামাজিক মাধ্যমে দ্রুত ছড়িয়ে পড়ার তার প্রতিকারে জনতা উত্তাল হয়েছে।

বিবিএসের জরিপের মতে দেশে বর্তমানে নারীদের শতকরা ৮০ জনই কোনো না-কোনোভাবে নির্যাতনের শিকার হন। যদিও সর্বশেষ সরকারি জরিপের ফল বলছে, দেশে গত চার বছরে বিবাহিত নারীদের নির্যাতন কমেছে ৭ শতাংশের মতো। তবে এই বিবাহিত নারীরা আগের মতোই সবচেয়ে বেশি নির্যাতনের শিকার হন স্বামীর হাতে।



সংবাদটি পড়া হয়েছে মোট : 576        
   আপনার মতামত দিন
     রাজনীতি
ভিপি নুরকে ‘নূরাহম্বক’ বললেন গোলাম রাব্বানী
.............................................................................................
খুশি করতে ভারতকে দেশের স্বার্থ বিকিয়ে দেয়া হয়েছে
.............................................................................................
আওয়ামী লীগের ৭০তম প্রতিষ্ঠাবার্ষিকীতে বঙ্গবন্ধুর প্রতিকৃতিতে প্রধানমন্ত্রীর শ্রদ্ধা নিবেদন
.............................................................................................
১৫ মে দেশে ফিরছেন ওবায়দুল কাদের
.............................................................................................
বিএনপিরও ক্ষমা চাওয়া উচিত: তথ্যমন্ত্রী
.............................................................................................
ইউপি সদস্যের ৬ মাসের কারাদন্ড
.............................................................................................
টাঙ্গাইল -৩ আসনে আওয়ামীলীগের মনোনয়ন প্রত্যাশী প্রফেসর ড. অধীর চন্দ্র সরকার
.............................................................................................
কচুয়ায় ইউপি ওয়ার্ড উপ-নির্বাচন
.............................................................................................
প্রধানমন্ত্রীকে খালেদা জিয়ার উকিল নোটিশ
.............................................................................................
একুশের প্রথম প্রহরে শহীদ মিনারে শহীদদের প্রতি শ্রদ্ধা জানাতে যাবেন খালেদা
.............................................................................................
সুরঞ্জিত সেনগুপ্তের মৃত্যুতে খালেদার শোক
.............................................................................................
সুরঞ্জিত সেনগুপ্তের মৃত্যুতে রাষ্ট্রপতির শোক
.............................................................................................
জামায়াত-জঙ্গি নিয়ে গণতন্ত্র মজবুত হয় না: ইনু
.............................................................................................
খালেদার অসমাপ্ত আত্মপক্ষ সমর্থন ২৬ জানুয়ারি
.............................................................................................
দুর্নীতির দুই মামলায় প্রধান আসামি খালেদা জিয়া
.............................................................................................
দুর্ধর্ষ জঙ্গি মারজান সাদ্দাম নিহত
.............................................................................................
শিক্ষামন্ত্রীকে ছাত্র সংসদ নির্বাচন দেওয়ার আহ্বান সেতুমন্ত্রীর
.............................................................................................
২৩৬৭ গেরিলা মুক্তিযোদ্ধার স্বীকৃতিতে হাইকোর্টের দেওয়া রায় বহাল
.............................................................................................
ঢাকাসহ দেশজুড়ে ভূমিকম্প
.............................................................................................
এমপি লিটনকে হত্যার ক্ষেত্র তৈরি করে টার্গেট কিলিং: প্রধানমন্ত্রী
.............................................................................................
বোমা নয়, খেলনা ছিল বগুড়া মেইল ট্রেনের চাকায়
.............................................................................................
খালেদার বিরুদ্ধে মামলার হুঁশিয়ারি কাদেরের
.............................................................................................
অবৈধ সত্ত্বা নিয়ে ক্ষমতার রঙ্গমঞ্চের দৌরাত্ম্য দেখাচ্ছে সরকার: রিজভী
.............................................................................................
বিদেশি টিভি চ্যানেলে বিজ্ঞাপন প্রচার বন্ধ রাখার নির্দেশ
.............................................................................................
ঢাকা আন্তর্জাতিক বাণিজ্য মেলার উদ্বোধন করলেন প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা
.............................................................................................
সারা দেশে ৩৫ কোটি বই বিতরণ করা হচ্ছে : শিল্পমন্ত্রী
.............................................................................................
জিএসপি নয়, নতুন বাজার খুঁজুন: ব্যবসায়ীদের প্রধানমন্ত্রী
.............................................................................................
স্মার্ট কার্ড সংগ্রহে ভোটারদের উপস্থিতি কম
.............................................................................................
প্রধানমন্ত্রী সঠিক সিদ্ধান্তই নিয়েছেন
.............................................................................................
সংবাদ সম্মেলনে জাতীয় মানবাধিকার কমিশনের চেয়ারম্যান মন্দিরে হামলা পূর্বপরিকল্পিত, দায় আছে পুলিশেরও
.............................................................................................
মানবাধিকার খবরের উদ্যোগে ভারত থেকে দেশে ফেরার অপেক্ষায় প্রতিবন্ধী সজিব ও সালমা
.............................................................................................
সড়ক দুর্ঘটনাকে জাতীয় দুর্যোগ হিসেবে চিহ্নিত করে জাতীয় ঐক্য গড়ে তুলুন ইলিয়াস কাঞ্চন
.............................................................................................
বিশ্ব ইজতেমার প্রথম পর্ব শুরু ১৩ জানুয়ারি
.............................................................................................
স্মৃতিতে অমলীন
.............................................................................................
নিখোঁজ শারমিনের সন্ধান মেলেনি দেড় মাসেও
.............................................................................................
রাজনৈতিক দলে ৩৩ শতাংশ নারীর অংশ গ্রহণ নিশ্চিতের দাবি
.............................................................................................
অধ্যক্ষের কু-প্রস্তাবে রাজি না হওয়ায় শিক্ষিকা বরখাস্তের অভিযোগ
.............................................................................................
প্লাস্টিকের বোতলে ক্যান্সারের উপাদান!
.............................................................................................
দুর্নীতিবাজদের মেরুদন্ড ভেঙে দেওয়া হবে
.............................................................................................
তিন যুবককে বেঁধে নির্যাতন
.............................................................................................
উদ্ভোধন করলেন প্রধানমন্ত্রী জাতীয় প্রেসক্লাবে ৩১ তলা বঙ্গবন্ধু মিডিয়া কমপ্লেক্স
.............................................................................................
সামাজিক অপরাধ শিশু নির্যাতন বেড়েই চলছে
.............................................................................................
শোক শ্রদ্ধায় জেলহত্যা দিবস পালিত
.............................................................................................
অ্যাম্বুলেন্স সিন্ডিকেটের হাতে জিম্মি রোগীরা
.............................................................................................
ভালো আছেন খাদিজা
.............................................................................................
পরিবেশ বাঁচাও আন্দোন(পবা)’র প্রতিবেদন
.............................................................................................
সিলেটে মানুষরুপী অমানুষের বর্বরতার শিকার খাদিজা
.............................................................................................
শুরুতেই ভোগান্তির অভিযোগ
.............................................................................................
বঙ্গবন্ধু কোন দলের নয়
.............................................................................................
চেয়ারম্যানের উপস্থিতিতে ফুল বেঞ্চে শুনানি অনুষ্ঠিত হয় বৈকুণ্ঠপুর চা বাগান শ্রমিকদের পাওনা শোধ করার অঙ্গিকার করেছেন মালিকপক্ষ
.............................................................................................

|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|

Editor & Publisher: Rtn. Md Reaz Uddin
Corporate Office
53,Modern mansion(8th floor),Motijheel C/A, Dhaka
E-mail:manabadhikarkhabar34@gmail.com,manabadhikarkhabar34@yahoo.com,
Tel:+88-02-9585139
Mobile: +8801978882223 Fax: +88-02-9585140
    2015 @ All Right Reserved By manabadhikarkhabar.com    সম্পাদকীয়    Adviser List

Developed By: Dynamic Solution IT & Dynamic Scale BD